December 4, 2021

মুক্ত বাংলা সংবাদ

সবার আগে সঠিক খবর

৭২ হাজার ৭৫০ কোটি টাকার প্রণোদনা প্যাকেজ ঘোষণা প্রধানমন্ত্রীর

করোনাভাইরাসের কারণে আর্থিক ক্ষতি মোকাবিলায় মোট ৭২ হাজার ৭৫০ কোটি টাকার আর্থিক প্রণোদনা ঘোষণা করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

রোববার (৫ এপ্রিল) গণভবনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এই প্রণোদনা প্যাকেজ ঘোষণা করেন।

এ সময় প্রধানমন্ত্রী চারটি প্যাকেজ ঘোষণা করেন।

এই প্রণোদনা প্যাকেজ সমাজের সব স্তরের পেশাজীবী মানুষ পাবে বলে শেখ হাসিনা উল্লেখ করেন। শেখ হাসিনা বলেন, এই প্রণোদনা প্যাকেজ খুব শিগগিরই বাস্তবায়িত হলে আর্থিক ক্ষতি মোকাবিলা সম্ভব। এর ফলে কাঙ্ক্ষিত প্রবৃদ্ধি অর্জন করা সম্ভব হবে।

প্রথম প্যাকেজে রয়েছে শিল্প-কারখানার জন্য ৩০ হাজার কোটি টাকার ঋণ সুবিধা। এটি ওয়ার্কিং ক্যাপিটাল। বাণিজ্যিক ব্যাংকগুলো থেকে এই প্রণোদনার অর্থ ঋণ হিসেবে নেওয়া যাবে। এর বিপরীতে সুদের হার ৯ শতাংশ। সাড়ে চার শতাংশ শোধ করবে ঋণগ্রহিতা আর বাকি সুদ ভর্তুকি দেবে সরকার।

এছাড়া ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্পসহ মাঝারি শিল্প প্রতিষ্ঠানে ওয়ার্কিং ক্যাপিটাল সুবিধা প্রদান। এ খাতে ঘোষণা করা হয়েছে ২০ হাজার কোটি টাকার ঋণ সুবিধা। সুদের ৪ শতাংশ পরিশোধ করবে সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠান ও বাকি ৫ শতাংশ দেবে সরকার।

এছাড়া এক্সপোর্ট ডেভেলপমেন্ট ফান্ড সুবিধা বাড়ানো হবে। ব্যাক টুক ব্যাক এলসির আওতায় কাচামাল সুবিধা বাড়ানো হবে। ১৫০ কোটি ডলার সমপরিমাণ অতিরিক্ত ইডিএফ তহবিলে যুক্ত হবে।

বাংলাদেশ ব্যাংকও ৫ হাজার কোটি টাকার নতুন ঋণ সুবিধা চালু করবে। সুদের হার ৭ শতাংশ।

প্রধানমন্ত্রী বলেন এর আগে রফতানিমুখি শিল্পের জন্য ৫ হাজার কোটি টাকার প্রণোদনা প্যাকেজ ঘোষণা করেছিলাম। সেটিসহ মোট প্রণোদনার পরিমাণ ৭২ হাজার ৭৫০ কোটি টাকা।

শেখ হাসিনা বলেন, ‘এর ফলে অর্থনৈতিক গতি অব্যাহত থাকবে। দেশীয় পণ্যের প্রতি নজর দিতে হবে। দেশীয় পণ্য উৎপাদন ও ব্যবহার বৃদ্ধির আহ্বান জানাচ্ছি।’

শেখ হাসিনা বলেন, ‘এ জাতির সহনশীল ক্ষমতা অনেক বেশি। ঘাত প্রতিঘাত সহ্য করে মাথা তুলে দাঁড়ানোর ক্ষমতা অনেক বেশি। যেই জাতির জাতির জনকের ডাকে ৯ মাস যুদ্ধ করে দেশ স্বাধীন করেছে, বঙ্গবন্ধু বলে গেছেন, সেই জাতিকে কেউ দাবায়ে রাখতে পারবে না। আমরাও জাতির পিতার অমর বাণী বুকে ধারণ করে এগিয়ে যাব, এটাই আমাদের লক্ষ্য।’

সবাই নিরাপদে থাকুক, ভালো থাকুক এটি আমাদের চাওয়া বলেন শেখ হাসিনা।

/নিউজ.মুক্তবাংলা.নেট